বাংলাদেশ প্রতিদিনের ১৪ বছরে পদার্পণ

প্রকাশিত: ৪:৪২ পূর্বাহ্ণ, মার্চ ১৫, ২০২৩

বাংলাদেশ প্রতিদিনের ১৪ বছরে পদার্পণ

বাংলাদেশের সর্বাধিক প্রচারিত দৈনিক বাংলাদেশ প্রতিদিন ১৪ বছরে পদার্পণ করেছে। ১৩ বছর পূর্তি ও ১৪ বছরে পদার্পণ উপলক্ষে মঙ্গলবার (১৪ মার্চ) রাতে রাজধানীর বসুন্ধরা আবাসিক এলাকায় বাংলাদেশ প্রতিদিন কার্যালয় প্রাঙ্গণে কেক কাটা অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়।

অনুষ্ঠানের প্রধান অতিথি তথ্য ও সম্প্রচারমন্ত্রী ড. হাছান মাহমুদ বসুন্ধরা গ্রুপের ব্যবস্থাপনা পরিচালক সায়েম সোবহান আনভীর, জাতীয় সংসদের হুইপ আবু সাঈদ আল মাহমুদ স্বপন ও বাংলাদেশ প্রতিদিন সম্পাদক নঈম নিজামকে সঙ্গে নিয়ে কেক কাটেন।

এ সময় উপস্থিত ছিলেন কালের কণ্ঠের প্রধান সম্পাদক কথাসাহিত্যিক ইমদাদুল হক মিলন, ডেইলি সান সম্পাদক এনামুল হক চৌধুরী, কালের কণ্ঠ সম্পাদক শাহেদ মুহাম্মদ আলী, বসুন্ধরা মিডিয়া লিমিটেডের প্রকাশক ময়নাল হোসেন চৌধুরী, বাংলানিউজ টোয়েন্টিফোর ডট কমের সম্পাদক জুয়েল মাজহার, ডেইলি সানের নির্বাহী সম্পাদক রেজাউল করিম লোটাস, নিউজ টোয়েন্টিফোরের নির্বাহী সম্পাদক রাহুল রাহা।

এর আগে বাংলাদেশ প্রতিদিনের ১৩ বছর পূর্তি উপলক্ষে বসুন্ধরা গ্রুপের ব্যবস্থাপনা পরিচালক সায়েম সোবহান আনভীরকে ফুল দিয়ে শুভেচ্ছা জানান তথ্য ও সম্প্রচারমন্ত্রী ড. হাছান মাহমুদ।

অনুষ্ঠানে তথ্য ও সম্প্রচারমন্ত্রী এবং আওয়ামী লীগের যুগ্মসাধারণ সম্পাদক ড. হাছান মাহমুদ বলেন, ১৩ বছর পূর্ণ করে ১৪ বছরে পদার্পণে বাংলাদেশ প্রতিদিন পরিবারকে শুভেচ্ছা। বসুন্ধরা গ্রুপের চেয়ারম্যান আহমেদ আকবর সোবহানের হাত ধরে বাংলাদেশ প্রতিদিন প্রতিষ্ঠিত হয়েছে। বাংলাদেশ প্রতিদিন দেশের সর্বাধিক প্রচারিত পত্রিকা।

‘প্রচার সংখ্যার দিক দিয়ে দেশের এক নম্বর পত্রিকা। শুরু থেকেই বাংলাদেশ প্রতিদিন পাঠকপ্রিয়তা পেয়েছে। পাঠকপ্রিয়তা অনেক পত্রিকা পায়, কিন্তু অব্যাহতভাবে ধরে রাখা সহজ কাজ নয়। বাংলাদেশ প্রতিদিন তা ধরে রাখতে সক্ষম হয়েছে। ’

‘অল্প পরিসরে বেশিসংখ্যক সংবাদ পরিবেশনের যে মুনশিয়ানা, তা বাংলাদেশ প্রতিদিন দেখাতে পেরেছে। ’

তিনি আরও বলেন, ‘বাংলাদেশ প্রতিদিন শুরু থেকেই মুক্তিযুদ্ধের চেতনা ধারণ করেছে, বাংলাদেশ বিনির্মাণে অবদান রাখছে, একই সঙ্গে সমাজের দর্পণ হিসেবে কাজ করছে। সাদাকে সাদা বলা, কালোকে কালো বলা, সত্যকে সত্য বলা, মিথ্যাকে মিথ্যা বলার চেষ্টা বাংলাদেশ প্রতিদিন অব্যাহতভাবে করে যাচ্ছে। ’

দেশের অগ্রযাত্রা ও গণমাধ্যমের ভূমিকা প্রসঙ্গে তথ্যমন্ত্রী বলেন, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বে বাংলাদেশ সব সূচকে পাকিস্তানকে বহু আগে অতিক্রম করেছে। মানব উন্নয়ন সূচক, অর্থনৈতিক সূচক, স্বাস্থ্য সূচকে পাকিস্তানকে সাত-আট বছর আগে অতিক্রম করেছি।

মানব উন্নয়ন সূচক, সামাজিক সূচক, স্বাস্থ্য সূচক, মাথাপিছু আয়ের ক্ষেত্রে আমরা ভারতকেও অতিক্রম করেছি। ২০০৯ সালে আমরা ৬০তম অর্থনীতির দেশ ছিলাম। এখন জিডিপি অনুযায়ী ৩৫তম অর্থনীতির দেশ। আমাদের লক্ষ্য পৃথিবীর বড় অর্থনীতির দেশগুলোর কাছাকাছি যাওয়া। একটি মানবিক সমৃদ্ধ রাষ্ট্র গঠন করার ক্ষেত্রে দেশের সর্বাধিক প্রচারিত পত্রিকা হিসেবে বাংলাদেশ প্রতিদিন অনবদ্য ভূমিকা পালন করতে পারে, পালন করবে বলে আমি বিশ্বাস করি। ১০০ বছর পরও বাংলাদেশ প্রতিদিন টিকে থাক। সমাজের দর্পণ হিসেবে কাজ করুক। দেশের উন্নয়নে অবদান রাখুক। ’

শুভেচ্ছা বক্তব্যে বসুন্ধরা গ্রুপের ব্যবস্থাপনা পরিচালক সায়েম সোবহান আনভীর বলেন, ‘বাংলাদেশ প্রতিদিন আমার পরিবারের মতো। এই প্রতিষ্ঠান আমার অন্তরে রয়েছে। কারণ এই যাত্রার পেছনে আমি প্রথম উদ্যোগ নিয়েছিলাম। বাংলাদেশ প্রতিদিন দেশের সর্বাধিক প্রচারিত দৈনিক। বাংলাদেশ প্রতিদিনের কর্মীদের কাছে প্রত্যাশা- আপনারা এই এক নম্বর অবস্থান ধরে রেখে এগিয়ে যাবেন। আমাদের পরিবারের পক্ষ থেকে আমাদের সবাইকে আন্তরিক শুভেচ্ছা। ’

জাতীয় সংসদের হুইপ ও আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক আবু সাঈদ আল মাহমুদ স্বপন বলেন, ‘বাংলাদেশ প্রতিদিনের ১৩তম প্রতিষ্ঠাবার্ষিকীতে এই প্রতিষ্ঠানের সবাইকে আন্তরিক শুভেচ্ছা। আমি বাংলাদেশ প্রতিদিনের নিয়মিত পাঠক। বাংলাদেশ প্রতিদিন শুরু থেকে মুক্তিযুদ্ধের পক্ষে অবিচল। আগামীতে এই পত্রিকার পথচলা আরও সমৃদ্ধ হোক, শানিত হোক। ’

বাংলাদেশ প্রতিদিন সম্পাদক নঈম নিজাম পত্রিকার সব পাঠক, কর্মী ও শুভানুধ্যায়ীকে ধন্যবাদ জানিয়ে বলেন, ‘দেখতে দেখতে ১৪ বছরে পদার্পণ করল বাংলাদেশ প্রতিদিন। মনে হয় এই তো সেদিন বসুন্ধরা গ্রুপের ব্যবস্থাপনা পরিচালক সায়েম সোবহান আনভীর বললেন এক মাসের মধ্যে একটি কাগজ বাজারে আনতে হবে। বসুন্ধরা গ্রুপের চেয়ারম্যান আহমেদ আকবর সোবহান বললেন কাগজের জন্য নতুন ডিক্লারেশন নিতে হবে। নতুন ডিক্লারেশন নিয়ে এক মাসের মধ্যে খবরের কাগজ বাজারে আনা ছিল আমাদের জন্য চ্যালেঞ্জ। সেই চ্যালেঞ্জ উতরে দেশের সর্বাধিক প্রচারিত দৈনিক হিসেবে ১৪ বছরে পদার্পণ করেছে বাংলাদেশ প্রতিদিন। শুরু থেকে মুক্তিযুদ্ধের চেতনা, জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের আদর্শের প্রতি অবিচল সমর্থন এবং দেশের সমৃদ্ধিকে এগিয়ে নিতে অঙ্গীকারবদ্ধ বাংলাদেশ প্রতিদিন। ’

অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন বাংলাদেশ প্রতিদিনের নির্বাহী সম্পাদক আবু তাহের, উপসম্পাদক মাহমুদ হাসান, প্রধান বার্তা সম্পাদক কামাল মাহমুদ, বার্তা সম্পাদক নাহিদুল ইসলাম, প্রধান প্রতিবেদক মনজুরুল ইসলাম, সার্কুলেশন বিভাগের প্রধান বিল্লাল হোসেন মন্টু, বিজ্ঞাপন বিভাগের প্রধান সালাহ উদ্দিন আহমেদ প্রমুখ।

বাংলাদেশ প্রতিদিন বসুন্ধরা মিডিয়া লিমিটেডের অন্যতম প্রকাশনা। এটি দেশের সর্বাধিক প্রচারিত দৈনিক, যা ২০১০ সালের ১৫ মার্চ যাত্রা করে।

এস এ